স্বাস্থ্যবিধি মেনে বন্যার্তদের পাশে দাঁড়ানো বড় চ্যালেঞ্জ: আইসিটি প্রতিমন্ত্রী

দৈনিক নতুন বিশ্ববার্তা অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ৩:০২ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১৯, ২০২০

সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানো করোনা মোকাবিলার জন্য বড় চ্যালেঞ্জ বলে মনে করেন তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ। আজ শুক্রবার দুপুরে নাটোরের সিংড়া উপজেলার তাজপুর ইউনিয়নের তেমুক বাজারে বন্যাদুর্গত মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করতে গিয়ে তিনি এ কথা বলেন।তেমুক বাজারে শত শত বন্যাকবলিত মানুষ ত্রাণের জন্য গাদাগাদি করে সমবেত হলে তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন। সেখানে তিনি বলেন, করোনা মোকাবিলার জন্য সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এ ছাড়া মাস্ক পরা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাও জরুরি। কিন্তু বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়াতে হলে এসবের কোনোটাই বজায় রাখা সম্ভব হচ্ছে না। যেখানেই ত্রাণ দিতে যাওয়া হচ্ছে, সেখানে মানুষ ত্রাণের জন্য হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন। তাঁরা ক্ষুধার তাড়নায় মুখে মাস্ক পরার কথা ভুলে যাচ্ছেন। নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রেখে দাঁড়াচ্ছেন না।

তেমুক বাজারে শত শত বন্যাকবলিত মানুষ ত্রাণের জন্য গাদাগাদি করে সমবেত হলে তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন। সেখানে তিনি বলেন, করোনা মোকাবিলার জন্য সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এ ছাড়া মাস্ক পরা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাও জরুরি। কিন্তু বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়াতে হলে এসবের কোনোটাই বজায় রাখা সম্ভব হচ্ছে না। যেখানেই ত্রাণ দিতে যাওয়া হচ্ছে, সেখানে মানুষ ত্রাণের জন্য হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন। তাঁরা ক্ষুধার তাড়নায় মুখে মাস্ক পরার কথা ভুলে যাচ্ছেন। নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রেখে দাঁড়াচ্ছেন না।

জুনাইদ আহমেদ বলেন, ‘এই পরিস্থিতি করোনা মোকাবিলার জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। আমার জন্য বন্যার্তদের পাশে দাঁড়ানো ও তাঁদের সুস্থ রাখার ব্যবস্থা করা যেমন দায়িত্ব, তেমনি তাঁদের খাদ্য ও বসবাস নিশ্চিত করাও কর্তব্য।’ এ কারণে তিনি তথ্যপ্রযুক্তি কাজে লাগিয়ে কীভাবে সমস্যার সমাধান করা যায়, তা নিয়ে কাজ করার তাগিদ দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের।এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন তাজপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মিনহাজ উদ্দিন, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আল আমিন সরকার, উপজেলা আওয়ামী লীগের ধর্মবিষয়ক সম্পাদক মাওলানা রুহুল আমিন, তাজপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি খবির উদ্দিন সরদার, সহসভাপতি পঙ্কজ কুমার সাহা, সাধারণ সম্পাদক ফারুক হোসেন প্রমুখ।